-->
কালারমার ছড়ায় দুর্ধর্ষ চুরি, টাকা ও মালামাল লুট

কালারমার ছড়ায় দুর্ধর্ষ চুরি, টাকা ও মালামাল লুট


কাব্য সৌরভ , কালারমার ছড়া থেকে।।

কালারমার ছড়া ইউনিয়নের ২ নং ওয়ার্ড়ের আকবর হাজীর পাড়ার হাজী মার্কেটে গত রাতে দোকান চুরির ঘটনা ঘটেছে।

জানাযায়, (১৯ নভেম্বর-২০২০) বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে এই চুরির ঘটনাটি ঘটে। রাতের অন্ধকারে দোকানের তালা ভেঙ্গে একই সাথে ৪টি দোকান চুরি করে সংঘবদ্ধ চোর চক্র।

আকবর হাজী পাড়া বাজারের মুদির দোকানদার মোঃ সাদ্দাম হোসাইন,আবুল কালাম, নূর আহমদ ও নজির হোছাইনের

দোকানের তালা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে নগদ টাকা সহ মূল্যবান মালামাল ও কাগজপত্র চুরি হয় বলে জানান তারা।

ওই বাজারের ভুক্তভোগী দোকান মালিক সাদ্দাম হোসাইন ও নূর আহমদ জানান, প্রতিদিনের ন্যায় তারা রাত ১১ টায় দোকান বন্ধ করে বাড়ীতে চলে যান। পর দিন ভোরে ফজরের নামাজ পড়তে যাওয়া এক প্রতিবেশি বাজারের কয়েকটি দোকান খোলা দেখলে তার সন্দেহ হয়। পরে আরো কয়েকজন মুসল্লীকে সাথে নিয়ে দোকানের কাছে যায়। জিনিসপত্র অগোছালো দেখলে একজন দোকানের মালিক  কে তারা খবর দেন। দোকানের মালিক আবুল কালাম এসে দেখেন বিভিন্ন মালামালসহ নগদ  ৩৩ হাজার টাকা নাই। চোরেরা তা নিয়ে গেছে। অপর দোকানদার নজির হোসেন জানান, তার ছোট ভাই বিদেশ থেকে ৪৭হাজার টাকা পাঠিয়েছিল কয়েকদিন আগে। সে টাকা তিনি দোকানে নিরাপদ মনে করে দোকানের ড্রয়ারে রাখেন। একই অভিযোগ সাদ্দাম ও নুর আহমদেরও। 

বাজারে এমন চুরির ঘটনা ঘটায় আতংকিত হয়ে পড়েছে অন্য দোকানদারেরা। এ বিষয়ে ২ নং ওয়ার্ড়ের এমইউপি আক্তারুজ্জামান বাবু'র কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আকবর হাজী পাড়া বাজারে দোকান চুরির ঘটনাটি ক্ষতিগ্রস্ত কয়েক সওদাগর আমাকে জানিয়েছেন সকালে। আমি গিয়ে দোকান গুলো দেখে আসি। তবে এখনো চোর শনাক্ত হয়নি, কারা এই চুরির সাথে জড়িত তা খতিয়ে দেখতে তিনি চেষ্টা চালাচ্ছেন। এবং ওই বাজারে পাহারাদার না থাকায় এমন চুরির ঘটনাটি ঘটেছে বলে তিনি ধারণা করে বলেন, বাজারের সব দোকানের নিরাপত্তার জন্য সকল দোকানদারদের সাথে বৈঠক করে একটি বাজার পরিচালনা কমিটিও বাজার পাহারাদার নির্ধারণ করে দিবেন।

শিরোনাম ছিলো.. "কালারমার ছড়ায় দুর্ধর্ষ চুরি, টাকা ও মালামাল লুট"

Post a Comment

Iklan Atas Artikel

Iklan Tengah Artikel 1

Iklan Tengah Artikel 2

Iklan Bawah Artikel