-->
মহেশখালী সেতুর পাশে পুলিশ চেকপোস্টে ঢুকিয়ে ছিনতাইয়ের অভিযোগ

মহেশখালী সেতুর পাশে পুলিশ চেকপোস্টে ঢুকিয়ে ছিনতাইয়ের অভিযোগ


রকিয়ত উল্লাহ।। মহেশখালী ব্রীজের  বদরখালীর পার্শ্ববর্তী করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলা করার জন্য কালারমার ছড়ার চেয়ারম্যান তারেক বিন ওসমান শরীফের অনুদানে অস্থায়ী পুলিশ চেক পোস্টের সামনে মোটর সাইকেল আরোহীকে থামিয়ে চেক পোস্টের ভিতরে ঢুকিয়ে ছিনতাইয়ের অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত রাত সাড়ে ১১ টার সময়। ছিনতাইয়ের কবলে শিকার মহেশখালীর কালারমার ছড়ার আফজলিয়া পাড়ার ছমির জালালের পূত্র রব্বাহান উদ্দীন রব্বানী। তিনি গণমাধ্যম কর্মীকে জানান, গত রাতে সাড়ে ১১টার দিকে  বদরখালী বাজারে ডাক্তারের দোকান থেকে ফেরার পথে বদরখালী ব্রিজের পাশে পুলিশ চেকপোস্ট এর সামনে ছিনতাইকারীরা রাস্তার মাঝখানে অবস্থান করে। গাড়ীর হর্ণ দিলে ও সরে না দাড়ালে বাইক থামলে তারা জোর করে নামিয়ে পুলিশ চেক পোস্টে ঢুকিয়ে একটি স্যামসাং মোবাইল,মানি ব্যাগে থাকা নগদ ৬হাজার ৩শ টাকা ও একটি বিদেশি হাত ঘড়ি ছিনিয়ে নেন। এ এছাড়াও নানা ধরণের হয়রানি করার চেষ্টা করেন।


এদিকে অনুসন্ধানে জানা যায়,  বদরখালী ফেরীঘাটস্থ এলাকায়  সক্রিয় একটি ছিনতাই কারী গ্রুপ রয়েছে।  তারা দীর্ঘ দিন ধরে বিভিন্ন সময় মাদক সেবন করে মানুষকে হয়রানিসহ শারিরিক লাঞ্ছিত ,মোবাইল, টাকা,চুরি,মাদক ও ইয়াবা  কারবার করে আসছে। দীর্ঘদিন ধরে প্রশাসনের নজরদারি না থাকায় ছিনতাইকারীর সদস্যরা বেপরোয়া হয়ে উঠে। এমবস্থায় প্রশানের নজরদারি বাড়ানো বলে মনে করেন সচেতমহল।

এ বিষয়ে চকরিয়া থানার ওসি শাকের মো:যুবায়ের বলেন,ছিনতাইয়ের অভিযোগ পাই নি। যদি লিখিত অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শিরোনাম ছিলো.. "মহেশখালী সেতুর পাশে পুলিশ চেকপোস্টে ঢুকিয়ে ছিনতাইয়ের অভিযোগ"

Post a Comment

Iklan Atas Artikel

Iklan Tengah Artikel 1

Iklan Tengah Artikel 2

Iklan Bawah Artikel