আমরা মহেশখালীর কথা বলি..

যৌনদাসী না হওয়ায় ২৫০ নারীকে মারলো আইএস - মহেশখালীর সব খবর

⬤ আমাদের নতুন ওয়েবসাইটে স্বাগতম। ⬤ আমাদের ওয়েবসাইট www.moheshkhalirsobkhabor.com ⬤ ফেসবুক ফেইজ www.facebook.com/m.sobkhabor ⬤ ইউটিউব চ্যানেল www.YouTube.com/Sobkhabor24x7 ⬤ ফেসবুক গ্রুপ www.facebook.com/groups/m.sobkhabor ⬤

যৌনদাসী না হওয়ায় ২৫০ নারীকে মারলো আইএস

ঢাকা: যৌনদাসী হতে অস্বীকৃতি জানানোয় গত প্রায় পৌনে দু’বছরে ২৫০ নারীকে হত্যা করেছে জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস)। ‘যৌন জিহাদে আপত্তি’ করার অপরাধে ইরাকের উত্তরাঞ্চলের মসুলে এ বর্বর হত্যাকাণ্ড চালিয়েছে তারা।
সম্প্রতি লন্ডনভিত্তিক একটি সংবাদ সংস্থাকে এ কথা জানিয়েছেন ইরাকের প্রভাবশালী কুর্দিশ ডেমোক্রেটিক পার্টির মুখপাত্র সাঈদ মামুজিনি। ওই সংবাদ সংস্থার বরাত দিয়ে বৃহস্পতিবার (২১ এপ্রিল) বেশ কিছু আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম এ খবর দিচ্ছে।
সংবাদ সংস্থাটি জানায়, ২০১৪ সালের জুনে ইরাকের দ্বিতীয় বৃহত্তম ও কৌশলগত গুরুত্বপূর্ণ শহর মসুল দখলের সময় আইএস জঙ্গিরা সেখানকার নারীদের বিভিন্ন পন্থায় যৌনদাসী হওয়ার প্রস্তাব দেয়। কিন্তু তাতে রাজি না হওয়ায় হত্যা করা হয় সেই নারীদের।
মামুজিনির দাবি, মসুল দখলের পর থেকে এখন পর্যন্ত আইএস জঙ্গিদের ‘প্রস্তাব’ প্রত্যাখ্যান করায় ২৫০ জন নারীকে প্রাণ হারাতে হয়েছে।
এ বিষয়ে আরেক রাজনৈতিক দল প্যাট্রিয়টিক ইউনিয়ন অব কুর্দিস্তানের (পিইউক) নেতা গায়েস সুরর্চি সংবাদমাধ্যমকে বলেন, আইসের এই হত্যাকাণ্ডে মানবাধিকার ব্যাপকভাবে লঙ্ঘিত হয়েছে। কেবল যৌনসঙ্গী হওয়ার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় এ হত্যাকাণ্ড হয়েছে।
সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন মতে, যৌনদাসী হতে রাজি না হওয়ায় গত বছরের আগস্টে ১৯ জন নারীকে জবাই করে আইএস জঙ্গিরা। তাদের বিরুদ্ধে প্রায় ৫০০ নারীকে অপহরণ এবং ধর্ষণের অভিযোগও রয়েছে।

Powered by Blogger.