বিশেষ প্রতিনিধি, হোয়ানক থেকে।। 

মহেশখালীর হোয়ানক ইউনিয়ন ছাত্রলীগের উদ্যোগে ১৫ আগস্ট ও ২১ আগস্ট এর স্মরণে এক দোয়া মাহফিল ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। হোয়ানক ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম জিসানের সভাপতিত্বে উক্ত দোয়া মাহফিল ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। দোয়া মাহফিল ও আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক ও সাবেক চেয়ারম্যান ফরিদুল আলম। প্রধান বক্তা ছিলেন মহেশখালী উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক ওয়াজেদ আলী মুরাদ। বিশেষ ছিলেন হোয়ানক ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাফর আলম জফুর, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি রিদুয়ান রাসেল, উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক হালিমুর রশিদ। 

প্রধান অতিথি বলেন, ‘ছাত্রলীগ একটি ঐতিহ্যবাহী ত্যাগী ছাত্রসংগঠন। স্বাধীনতা সংগ্রাম দেশের সব ক্রান্তিলগ্নে নি:স্বার্থভাবে দেশের জন্য ঝাঁপিয়ে পড়েছে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এই জন্য হাজার হাজার ছাত্রলীগ নেতাকর্মী জীবন বিসর্জন দিয়েছে। শুধু তাই নয়; ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাতা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানও স্বপরিবারে জীবন বিসর্জন দিয়েছে। দেশবিরোধীরা বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে নির্মমভাবে হত্যা করেছিলেন। আল্লাহর রহমতে ভাগ্যক্রমে বেঁচে যাওয়া জননেত্রী শেখ হাসিনা যোগ্য উত্তরসুরী হিসেবে আজ দেশকে বিশ্বের উন্নত দেশের কাতারে নিতে সক্ষম হয়েছেন। দেশদ্রোহীরা শেখ হাসিনাকেও হত্যার উদ্দেশ্যে গ্রেনেড হামলা করেছিলেন। কিন্তু ২৪ তাজাপ্রাণের বিনিময়ে তিনি বেঁচে গিয়েছিলেন। এই দু’নারকীয় হত্যাযজ্ঞ ইতিহাস কখনো ক্ষমা করবে না।’

প্রধান বক্তা ওয়াজেদ আলী মুরাদ বলেন, ছাত্রলীগ একটি আদর্শবাদী ছাত্রসংগঠন। এই সংগঠনের অগণিত নেতাকর্মী অতন্দ্র প্রহরী হয়ে আজ দেশের উন্নয়ন ও সুরক্ষায় ভূমিকা রেখে যাচ্ছে। হোয়ানক ইউনিয়ন ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের এই অগ্রযাত্রায় সামিল হয়ে নিজেদের ত্যাগ ও যোগ্যতাকে প্রমাণ করতে হবে। এরই অংশ হিসাবে ইউনিয়নের প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে অবস্থান করে ছাত্রলীগকে তার গৌরবময় ঐতিহ্যের স্বাক্ষর রাখতে হবে। তাই সকল নেতাকর্মীকে নিরসলভাবে মাঠে থেকে কাজ করে যেতে হবে।’

অতিথিদের মধ্যে আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুল্লাহ আল নিশান ও মহেশখালী পৌর ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক শাহাব উদ্দীন হিরু। 

কফিল উদ্দীন হোসাইনের কোরআন তেলোয়াতের মাধ্যমে অনুষ্ঠিত অনুষ্ঠানের সঞ্চালন করেন ইউনিয়ন ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক সাইফুর রহমান সাগর। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ইউনিয়ন ছাত্রলীগ নেতা আলা উদ্দীন, আনচারুল করিম ও মিজানুর রহমান মিজান। উপস্থিত ছিলেন, মহিউদ্দীন মিরাজ, শাহেল মো. আশেক, হাবিবুর রহমান উদীয়মান ছাত্রনেতা তারেক আজিজ, মো. ইকবাল, ফয়েজ খান, নূর মোহাম্মদ, আনছার, মিজানুর রহমান, মজিদ, রাশেল, ওসমান, ডাল্টন, প্রবাল, শচীন, সৈকত, কলিম উল্লাহ, হাসান, ইসমাঈল, আরফাত, সরওয়ার, শাওয়াল, বখতিয়ার, ফয়সাল, মেহেদী, মোবারক, সোহেল, রাফসান, সাগর প্রমুখ। পুরো অনুষ্ঠান সফল করতে পরিশ্রম করেন ছাত্রনেতা আলা উদ্দীনসহ নেতৃবৃন্দ।





শেয়ার:

মন্তব্য দিন: