মাহবুব রোকন ।।
কক্সবাজারের মহেশখালীতে কথা কাটাকাটির জের ধরে ৫৭ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে জানাগেছে। বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার কালারমার ছড়া এলাকায় একদল সন্ত্রাসী বাড়িতে ঢুকে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে জখম করার পর আজ শুক্রবার সন্ধ্যায় চমেক হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। মহেশখালী থানার অফিসার ইন-চার্জ (ওসি) ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

নিহতের সন্তান মোহাম্মদ মামুন জানান -উপজেলার কালারমার ছড়া ইউনিয়নের ফকিরজোম পাড়া গ্রামের তাদের একটি ছোট মুদির দোকান আছে, সম্প্রতি করোনা ইস্যুতে তাদের এ দোকান বন্ধ ছিল। দোকানে বসত তার বাবা মনসুর আলম প্রকাশ রাসু (৫৭) । বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এ দোকান খুলতে গেলে একই এলাকার বিভিন্ন মামলার আসামি মোজাম্মেল হক, সেলিম বাদশা ও আবু বক্করের নেতৃত্বে একদল লোক তাকে বাধা দেয় এবং দোকান খুলতে চাইলে ৫০ হাজার টাকা তাদেরকে দিতে হবে বলে টাকা দাবি করেন। এতে টাকা দিতে অস্বীকৃতি জানালে তার বাবা মনসুর আলমের সাথে এসব লোকদের মধ্যে বেশ বাকবিতণ্ডা হয়। পরে এ ঘটনার জের ধরে রাতে ৭-৮ জনের একদল লোক দোকানের পাশে মনসুর আলম এর বাড়িতে ঢুকে তাকে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে জখম করে। পরে তাকে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে চকরিয়া ও পরে চট্টগ্রাম হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণের কারণে হাসপাতালেই তার মৃত্যু হয়।

কালারমার ছড়ার ইউপি চেয়ারম্যান তারেক বিন ওসমান শরীফ ঘটনার অনুরূপ বিবরণ দিয়ে -তুচ্ছ ঘটনার জের ধরে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। মহেশখালী থানার অফিসার ইন-চার্জ (ওসি) প্রভাষ চন্দ্র ধর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন প্রাথমিক ভাবে খবর নিয়ে ঘটনার সাথে যুক্তদের গ্রেফতার করতে পুলিশের অভিযান চলছে। এদিকে স্থানীয় একাধিক সূত্র থেকে জানাযাচ্ছে -ইয়াবা বেচাকেনাজনিত দু’শ টাকার লেনদেনের তুচ্ছ ঘটনার জের ধরে এ ঘটনা ঘটেছে।

Share To:

Sobkhabor24x7

Post A Comment:

0 comments so far,add yours