-->
মহেশখালীতে পুলিশি তৎপরতা জোরদার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের নেতৃত্বে বাড়তি পুলিশ মাঠে

মহেশখালীতে পুলিশি তৎপরতা জোরদার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের নেতৃত্বে বাড়তি পুলিশ মাঠে


আ ন ম হাসান।। হেফাজতে ইসলামের যুগ্ম-মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হককে গ্রেফতারের পর মহেশখালীতে পুলিশের নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরও জোরদার করা হয়েছে। রোববার (১৮ এপ্রিল) দুপুরের পর থেকে দ্বীপ উপজেলা মহেশখালীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে পুলিশের জোর দায়িত্বপালন দেখাগেছে। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পঙ্কজ বড়ুয়ার নেতৃত্বে বাড়তি পুলিশের উপস্থিতে মহেশখালীতে পুলিশি তৎপরতা মনিটরিং করা হচ্ছে।


এদিকে দিনভার মহেশখালী থানার অফিসার ইন-চার্জ (ওসি) মো. আব্দুল হাই ও  মহেশখালী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আশিক ইকবালের নেতৃত্বে  পুলিশ সদস্যরা মহেশখালীর গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে পয়েন্টে দায়িত্ব পালন করছেন।

রোববার বিকেল তিনটা থেকে মহেশখালীর প্রধান সড়কগুলোতে পুলিশ সদস্যদের ব্যাপক উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে ৷ মোটরসাইকেল, পিকআপ ভ্যানে করে পুলিশ সদস্যরা উপজেলা সদরে টহল জোরদার রাখেন। একই সাথে লকডাউন ও করোনাকালে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার জন্য পুলিশ তৎপরতা চালায়।

এদিকে যদিও পুলিশের তরফ থেকে বলা হচ্ছে, লকডাউনের জন্যই এই পুলিশি মহড়া। তবে লকডাউনের গত দিনগুলোতে পুলিশের এমন মহড়া লক্ষ্য করা যায়নি।

পুলিশের মহড়া সম্পর্কে জানতে চাইলে মহেশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. আব্দুল হাই বলেন, লকডাউন কার্যকরে আমাদের পুলিশ সদস্যরা মোতায়েন রয়েছেন। আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখার জন্য চলমান কার্যক্রমেরই অংশ এই মহড়া। এটি ব্যতিক্রম কিছু না। যেকেনো অপ্রীতিকর ঘটনা কঠোর হস্তে দমন করা হবে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পঙ্কজ বড়ুয়া রাতে মহেশখালীর সব খবরকে জানান -মহেশখালীর আইনশৃংখলা স্বভাবিক রাখতে পুলিশ সব ধরণে পদক্ষেপ রেখেছে। ইতোমধ্যে মহেশখালীতে বাড়তি পুলিশ সদস্য আনা হয়েছে। পুলিশের একাধিক ইউনিট রাতে মহেশখালীর বিভিন্ন স্থানে টহল অব্যহত রেখেছে।

শিরোনাম ছিলো.. "মহেশখালীতে পুলিশি তৎপরতা জোরদার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের নেতৃত্বে বাড়তি পুলিশ মাঠে"

Post a Comment

Iklan Atas Artikel

Iklan Tengah Artikel 1

Iklan Tengah Artikel 2

Iklan Bawah Artikel